মঙ্গলবার, ০৪ অক্টোবর ২০২২, ১১:২৮ অপরাহ্ন

ফেসবুকে আবরারের মৃত্যুর খবর দেখে ফাইয়াজ: ‘প্লিজ প্লিজ এটা যেন স্বপ্ন হয়’

প্রকাশিতঃ বৃহস্পতিবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০২১, ৩:৪৭ অপরাহ্ন

বুয়েট ছাত্র আববার ফাহাদ হ’ত্যা মাম’লার রা’য় হয়েছে। রায়ে ২০ জনের ফাঁ’সি ও ৫ জনের যাব’জ্জী’বন দেয়া হয়েছে। আবরারের মৃ’ত্যু কীভাবে হয়েছে এ নিয়ে বি’স্তর বিবরণ পাওয়া গেছে। তবে সেই সংবাদ কীভাবে আবরারের পরিবার পেয়েছে, সেই হৃদ’য়বিদারক স্মৃতিকথা ফেসবুকে লিখেছেন আবরার ফাহাদের ছোটভাই আবরার ফাইয়াজ। রায় প্রকাশের পর ৯ ডিসেম্বর তিনি তার ফেসবুকে এটি লিখেন।

 

তিনি ওই দিন (৭ অক্টোবর ২০১৯) প্রথমে মায়ের কাছে জানতে পারেন তার ভাই অ’সুস্থ। কিন্তু তার কাছে তার ভাইয়ের কোনো বন্ধুর ফোন নম্বর না থাকায় কীভাবে সংগ্রহ করার চেষ্টা করেছেন এবং সংগ্রহ করতে গিয়ে ফেসবুকে গিয়ে জানতে পারেন তার ভাই আর নেই। হৃদয়স্প’র্শী স্মৃতিকথাটার কিছু অংশ তুলে দেয়া হলো-

 

‘সেদিন রাতে বার্সেলোনার খেলা ছিলো। ঘুমাতে ঘুমাতে অনেক রাত হয়ে গেছিলো। ঘুমানোর ২ ঘন্টা পর আম্মু ডেকে বললো, ‘তাড়াতাড়ি ওঠ, ভাইয়া নাকি খুব অ’সুস্থ, কে যেন কল দিয়ে বললো’। আব্বু ঢাকাতে কল দিয়ে মামাদের তাড়াতাড়ি হাসপাতালে যেতে বললো। আমাকে বললো কোনোভাবে যদি রুমমেটদের ফোন নাম্বার পাওয়া যায়। ভাইয়ার রুমমেটদের নাম জানতাম। প্রথমে নাম দিয়ে এফবিতে সার্চ দিয়ে পেলাম না। তারপর ভাইয়ার প্রোফাইলে এসে প্রোফাইল পিকচারের রি’য়েক্ট চেক করে রাফি ভাইয়ার আইডি পেলাম। ঢুকেই দেখি সবার উপরে এই পোস্ট, ‘২০১৭ ব্যাচের আবরার ফাহাদের আমাদের মাঝে আর নেই…..’

 

মুখ দিয়ে শুধু বলেছিলাম, ‘কিভাবে সম্ভব!’ আর মনে মনে সবার আগে মনে হয়েছিলো হয়তো এখনো ঘুম থেকে উঠিনি। কোনো দুঃ’স্বপ্ন দেখছি। বলেছিলাম, ‘প্লিজ প্লিজ এটা যেন স্বপ্ন হয়।’ কিন্তু সেদিন আর ঘুম ভা’ঙেনি। আস্তে আস্তে দিন বাড়তে লাগলো। আত্মীয়-স্বজনরা গিয়ে কনফার্ম করলো নিউজটা। কিছুক্ষণ পর টি’ভিতেও নিউজ আসলো। ফেসবুকে পরিচিত অনেকে একই পো’স্ট দিলো। দুপুরের কিছুক্ষণ পর বুয়েট ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মেহেদী হাসান রাসেলকে গ্রে’প্তার করে পুলিশ।

 

এটা দেখে বুঝে যায় কাদের এর পিছনে হাত আছে। তখন আশপাশের সবাই বলাবলি শুরু করে। এদের বিচার কোনোদিনও হবে না। আমিও জানতাম বিশ্বজিৎ, তনু, নুসরাত এদের কথা। সেদিন খুব কমই আশা ছিলো যে বিচার এতদূর আসবে। শুধু মনে মনে ভেবেছিলাম, ‘আল্লাহ, এরা আমার ভাইকে মে’রেও কি বেঁচে যাবে!’


More News Of This Category
এক ক্লিকে বিভাগের খবর
error:
error: