মঙ্গলবার, ০৪ অক্টোবর ২০২২, ০৯:১৫ পূর্বাহ্ন

লঞ্চে আগুন, জানাজায় মানুষের ঢল

প্রকাশিতঃ শনিবার, ২৫ ডিসেম্বর, ২০২১, ৯:১৭ পূর্বাহ্ন

ঝালকাঠির সুগন্ধা নদীতে অ’ভিযান-১০ লঞ্চে দুর্ঘ’টনা ঘটেছে। এতে ৪২ জনের মৃ’ত্যুর খবর পাওয়া গেছে। এর মধ্যে চার জনের ম’রদেহ স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। পরে আরো পাঁচ জনের ম’রদেহ হস্তান্তর করা হয়েছে। বাকি বাকি ৩২ লা’শ বরগুনা জে’লা প্রশাসনের কাছে হস্তান্তর করেছে ঝালকাঠি জে’লা প্রশাসন। এর মধ্যে দুই জনের লা’শ শনাক্ত হয়েছে। শনিবার (২৫ ডিসেম্বর) বেলা ১১টায় বরগুনা সার্কিট হাউস মাঠে জানাজা সম্পন্ন হয়।

 

শনিবার (২৫ ডিসেম্বর) বরগুনার সার্কিট হাউজের ঈদগাঁ মাঠে ৩০ জনের জানাজা সম্পন্ন হয়েছে। সেখান থেকে ২ জনের ম’রদেহ নিয়ে গিয়েছে তাদের পরিবার। বাকি ২৮ জনকে গণকবর দেওয়া হবে নাকি পরিবার নিয়ে যাবে সেটা এখনও জানা যায়নি। জানাজা নামাজে উপস্থিত ছিলেন হাজার হাজার মানুষ।

 

এছাড়া উপস্থিত ছিলেন বরগুনা-১ আসনের সংসদ সদস্য ধীরেন্দ্র দেবনাথ শম্ভু, জে’লা প্রশাসক হাবিবুর রহমান, জে’লা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির, পৌর মেয়র কাম’রুল আহসান মহারাজসহ প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্মক’র্তারা। জানাজা শেষে ম’রদেহগুলো সদর উপজে’লার পোটখালী গ্রামের সরকারি গণকবরে দাফন করা হবে।

 

এ ঘটনায় পাঁচ সদস্যের ত’দন্ত কমিটি গঠন করেছে ঝালকাঠি জে’লা প্রশাসন। শুক্রবার (২৪ ডিসেম্বর) দুপুরে অ’তিরিক্ত জে’লা প্রশাসক নাজমুল আলমকে প্রধান করে এ কমিটি গঠন করা হয়। জে’লা প্রশাসক জহোর আলী বলেন, ওই কমিটিতে আরও চার জন রয়েছেন। ইতোমধ্যে কমিটি তাদের কর্মকা’ণ্ড শুরু করেছেন। কমিটিকে লঞ্চ দুর্ঘ’টনার কারণ এবং কী’ভাবে অ’গ্নিকা’ণ্ডের সূত্রপাত হয়েছে এসব জানাতে বলা হয়েছে। আর লঞ্চের ইঞ্জিন বি’স্ফোরণে অ’গ্নিকা’ণ্ডের প্রাথমিক ধারণা কতটা সত্য- তাও বের করতে বলা হয়েছে।

 

বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে নলছিটির সুগন্ধা নদীর পোনাবালীয়া ইউনিয়নের দেউরী এলাকায় বরগুনাগামী এমভি অ’ভিযান-১০ লঞ্চের ইঞ্জিন রুম থেকে আ’গুন লাগে। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৪২ জনের মৃ’ত্যুর খবর পাওয়া গেছে। অ’গ্নিদ’গ্ধ হয়ে শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতা’লে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ৭০ জন। ঢাকায় পাঠানো হয়েছে ১৬ জনকে। আ’হত হয়েছেন শতাধিক।


More News Of This Category
এক ক্লিকে বিভাগের খবর
error:
error: