শনিবার, ১৩ অগাস্ট ২০২২, ০৯:৫২ পূর্বাহ্ন

শ্বশুরবাড়ির ঈদ উপহার না পেয়ে স্ত্রীকে প্রানে শেষ করে দিল স্বামী

প্রকাশিতঃ শনিবার, ৮ মে, ২০২১, ৫:২০ অপরাহ্ন

সিলেটের ওসমানীনগরে শ্বশুরবাড়ি থেকে ঈদের উপহার না পাওয়ায় অ’ন্তঃস’ত্ত্বা স্ত্রীকে পি’টি’য়ে ‘হ”ত্যা’র অ’ভিযো’গ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় নি’হ’তের স্বামী আরশ আলী ও শাশুড়ি মিনারা বেগমকে আ’ট’ক করেছে পুলিশ। শনিবার (৮ মে) দুপুরে ওসমানীগর থানা পুলিশ উপজেলার উসমানপুর ইউনিয়নের তাহিরপুর গ্রামের মৃ’ত ইছন আলীর বাড়ি থেকে শরিফা বেগমের ম’রদে’হ উ’দ্ধা’র করে।

 

নিহত ‍শরিফা বেগম (২০) হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলার পিটুয়া গ্রামের শাকিম উল্লাহর মেয়ে। তিনি ৭ মাসের অ’ন্তঃ’স’ত্ত্বা ছিলেন বলে জানিয়েছে তার পরিবার। অ’ভিযু’ক্ত আরশ আলী ও তার মা মিনারা বেগমের দা’বি- শরিফা ‘আ”ত্ম’হ”ত্যা’ করেছে। তবে পুলিশ বলছে- নি’হ’ত শরিফাকে বিছানায় শোয়ানো অবস্থা পাওয়া যায় এবং তার শরী’রের এ’কা’ধিক স্থানে জ’খ’মের চি’হ্ন রয়েছে। এ ঘটনা মা’ম’লা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

 

নিহতের পরিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, প্রায় ৯ মাস আগে ওসমানীনগর উপজেলার উসমানপুর ইউনিয়নের তাহিরপুর গ্রামের মৃ’ত ইছন আলীর ছেলে আরশ আলীর সঙ্গে পারিবারিকভাবে বিয়ে হয় হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলার পুটিয়া গ্রামের শাকিম উল্লাহর ছোট মেয়ে শরিফার। বিয়ের কিছুদিন পর ‘যৌ’তু’কস’হ নানা কারণে স্বামী আরশ আলী ও শাশুড়ি মিনারা বেগম তার ওপর ‘নি”র্যা’ত’ন শুরু করে। তবে শরিফা অ’ন্তঃস’ত্ত্বা হও’য়ায় তার পরিবার তাকে স’হ্য করে শ্বশুরবাড়িতে থাকার কথা বলে।

 

পরিবারের অ’ভিযো’গ, রমজানে শরিফা ও আরশ আলী শ্বশুরবাড়ি বেড়াতে যায়। এসময় তাকে ইফতার দিতে দেরি করার অ’ভিযো’গ করে জামাই আরশ আলী। এছাড়া আলাদাভাবে সাজানো থালায় ইফতার না দেয়ায় বাড়ি ফিরে স্ত্রীর ওপর ‘নি”র্যা’ত’ন’ করে আরশ আলী। সবশেষ শুক্রবার (৭ মে) সন্ধ্যায় শরিফার বাবার বাড়ি থেকে স্বামীর বাড়ির লোকজনের জন্য ঈদের নতুন কাপড় না আসা নিয়ে পা’রিবারিক কল’হ শুরু হয়। একপর্যায়ে শরিফাকে তার স্বামী ও শাশুড়ি ‘মা”রধ’র করে। বিষয়টি তাৎক্ষণিক ভাইকে ফোন করে জানায় শরিফা। পর সাহরির সময়ে শরিফার মোবাইল বন্ধ পান তার ভাই-বোনরা।

 

শরিফার বড় বোন জানান, শুক্রবার রাতে শরিফার ফোন পেয়ে শনিবার দুপুরে জামাই ও বেয়াই বাড়ির লোকজনের জন্য ঈদের নতুন পোশাক কেনেন শরিফার পরিবার। দুপুরে তা নিয়ে শরিফার শ্বশুরবাড়িতে রওনা করেন বড় বোন। পথিমধ্যে খবর আসে তার বোন খুবই অ’সুস্থ। এর কিছুক্ষণ পর জানানো হয়, শরিফা ‘আ”ত্মহ”ত্যা’ করেছেন। তিনি জানান, পরে বিষয়টি পুলিশকে জানানো হয়। ওসি শ্যামল বণিকের নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে শরিফার শ’রী’রে একাধিকস্থানে আ’ঘা’তের চিহ্ণ থাকায় তার লা’শ উ’দ্ধা’র করে ম’য়’নাতদ’ন্তে’র জন্য সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজের ম’র্গে প্রেরণ করে।


More News Of This Category
এক ক্লিকে বিভাগের খবর
error:
error: