শুক্রবার, ১২ অগাস্ট ২০২২, ০৪:০০ অপরাহ্ন

গর্ভে অন্যের সন্তান: নূসরাত জাহানের ডিভোর্স চাইলেন তসলিমা

প্রকাশিতঃ শনিবার, ৫ জুন, ২০২১, ১০:৩৯ পূর্বাহ্ন

নুশরতের খবর বেশ চোখে পড়ছে। তিনি প্রেগনে’ন্ট। তাঁর স্বামী নিখিল এ ব্যাপারে কিছু জানেন না। দুজন আলাদা থাকছেন ছ’মাস হলো। তবে যশ নামে এক অভিনেতার সঙ্গে অভিনেত্রী নুশরত প্রেম করছেন।

 

সন্তানের পিতা, মানুষ অনুমান করছে, যশ; নিখিল নয়। খবরটি খবর না গু’জব জানিনা। তবে এই যদি পরিস্থিতি হয়, তবে নিখিল আর নুশরতের ডি’ভো’র্স হয়ে যাওয়াই কি ভালো নয়? অচল কোনও সম্পর্ক বাদু’ড়ের মতো ঝুলিয়ে রাখার কোনও মানে হয় না। এতে দু’পক্ষেরই অ’স্বস্তি।

 

যখন নুশরত আর নিখিল বিয়ে করলেন, বেশ আনন্দ পেয়েছিলাম। অ’সাম্প্রদায়িকতায় বিশ্বাস করি বলে দুই ধ’র্মের মানুষের মধ্যে বিয়ে হলে খুব স্বা’ভাবিক কারণেই পুলকিত হই। জাত ধর্ম ইত্যাদি দূর করতে হলে ভিন্ন জাত আর ভিন্ন ধর্মের মানুষকে আত্মীয়তার বন্ধনে আব’দ্ধ হতে হবে। এতেই হিংসে আর হা’নাহা’নিকে হ’টানো যাবে। কিন্তু এত চোখ জুড়ো’নো জুটি যে বেশিদিন সুখে থাকবে না কে জানতো! নুশরত আর নিখিলের মতো সৃজিত আর মিথিলার বন্ধনও আমাকে প্রভূত আনন্দ দিয়েছে।

 

সেদিন ব্রাত্যর একটি ছবিতে নুশরতকে দেখলাম। ওটিই নুশরতের প্রথম কোনও ছবি আমার দেখা। মেয়েটি অনেকটা অ্যানজেলিনা জোলির মতো দেখতে, অভিনয়ও করে বেশ চমৎকার। নিশ্চয়ই মেয়েটি স্ব’নির্ভর। আসলে স্ব’নির্ভর এবং সচে’তন হলে, আত্মবিশ্বাস এবং আত্মসম্মান যথে’ষ্ট থাকলে নিজের সন্তানের অভিভাবক নিজেই হওয়া যায়। নিজের সন্তানকে নিজের পরিচয়েই বড় করা যায়। পুরুষের মুখাপেক্ষী হতে হয় না।

 

আসলে নিখিল এবং যশের মধ্যে কী এমন আর পার্থক্য! পুরুষ তো শেষ পর্যন্ত পুরুষই। এক জনকে ত্যা’গ করে আরেক জনকে বিয়ে করলে খুব যে সুখময় হয়ে ওঠে জীবন তা তো নয়। দ্বিতীয় বিষময় জীবন থেকে বাঁচতে তাহলে কি আবার আরেকটি বিয়ে করতে হবে? তাহলে এ রেসের শেষ হবে না, ‘কাংক্ষি’ত পু’রুষের দেখাও মিলবে না। স্বাধী’নচেতা নারীর কাং’ক্ষি’ত পুরুষ কল্পনায় থাকে, বাস্তবে নয়।

-তসলিমা নাসরিনের ভেরিফায়েড ফেসবুক আইডি থেকে

 


More News Of This Category
এক ক্লিকে বিভাগের খবর
error:
error: