মঙ্গলবার, ০৪ অক্টোবর ২০২২, ১১:৪৫ অপরাহ্ন

সেমিফাইনালে পাকিস্তানের পরাজয়ের পর যা বললেন ইমরান খান

প্রকাশিতঃ শুক্রবার, ১২ নভেম্বর, ২০২১, ৭:২১ পূর্বাহ্ন

এবারের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে কি দূর্দান্ত শুরুই না করেছিল পাকিস্তান। সুপার টুয়েলভে নিজেদের ৫ ম্যাচেই অপরাজিত থেকে সেমিফাইনালে উঠেছিল তারা। কিন্তু সেখানেই থামতে হলো তাদেরকে। সেমিফাইনালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ৫ উইকেটের ব্যবধানে হেরে বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নিল পাকিস্তান। অস্ট্রেলিয়ার ইনিংসের ১৭ ওভার পর্যন্ত মনে হচ্ছিল প্লেয়ার অব দ্য ম্যাচের প্রতিযোগিতায় লড়াই হবে রিজওয়ান ও ফখর এবং লেগ স্পিনার শাদাব খানের মধ্যে।

 

কিন্তু ম্যাচ শেষ হতেই দেখা গেল, ম্যাচ সেরার পুরস্কার অস্ট্রেলিয়ার উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান ম্যাথু ওয়েডের হাতে। মূলত ১৮ ও ১৯তম ওভারে ম্যাচ বের করে নেন ওয়েড। হাসান আলিকে ছক্কা হাঁকিয়ে সেই ওভারে ১৫ রান নেন। পরের ওভারে শাহিন শাহ আফ্রিদিকে টানা ৩ ছক্কা হাঁকান। ধুলিসাৎ করে দেন পাকিস্তানের ফাইনালে ওঠার স্বপ্ন।

 

৫ উইকেটে জয় নিয়ে এবারের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠল অস্ট্রেলিয়া। যদিও প্রথম ম্যাচে ভারত ও দ্বিতীয় ম্যাচে নিউজিল্যান্ডকে বিশাল ব্যবধানে গুড়িয়ে দিয়ে শিরোপার অন্যতম দাবিদার হয়ে ওঠে পাকিস্তান। গোটা টুর্নামেন্ট জুড়ে দুর্দান্ত খেলেছেন বাবর আজম ও মোহাম্মদ রিজওয়ান,হাসান আলি । দুর্দান্ত বল করেছেন শাহিন শাহ আফ্রিদি, হারিস রউফ, ইমাদ ওয়াসিম। সেমিফাইনালে জ্বলে উঠলেন শাদাব খান। তবুও ফাইনালে ওঠা হলো না।

 

পাকিস্তানের এই স্বপ্ন ভঙ্গের দিনও দলের পাশে দাঁড়িয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী ও বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক ইমরান খান। বাবর আজমদের স্বান্তনা দিলেন তিনি। পাকিস্তানের ম্যাচ পরাজয়ের পর এক টুইটে অধিনায়ক বাবর আজম ও গোটা দলকে উদ্দেশ করে ইমরান খান লিখেছেন,আমি ভালো করেই টের পাচ্ছি এ মুহূর্তে তোমাদের মনের অবস্থা কেমন, কেমন অনুভব করছ তোমরা।কারণ ক্রিকেটের মাঠে একই রকম হতাশার মুখোমুখি হয়েছি। কিন্তু এই পরাজয়ের পরও তোমরা গর্ব করতে পারো। কারণ তোমরা চমৎকার ক্রিকেট খেলেছ এবং জয়ের পরও তোমরা যে নম্রতা দেখিয়েছ তার জন্য সকলেই গর্বিত। অভিনন্দন টিম অস্ট্রেলিয়া।

 

এর আগে দুবাই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টসে হেরে আগে ব্যাটিং করে ২০ ওভার শেষে ১৭৬ রানের সংগ্রহ দাড় করায় পাকিস্তান। জয়ের জন্য অস্ট্রেলিয়ার টার্গেট ছিল ১৭৭ রান। পাকিস্তানের হয়ে সর্বোচ্চ রান এসেছিল মোহাম্মদ রিজওয়ানের ব্যাট থেকে। ৬৭ রান করে আউট হয়ে রিজওয়ান ফেরার পরে ব্যাট হাতে ঝড় তুলেন ফখর জামান। ৩২ বলে ৫৫ রানের ঝড়ো একটি ইনিংস খেলে দলকে এনে দেন লড়াকু এক সংগ্রহ। এছাড়া বাবর আজমের ব্যাট থেকে আসে ৩৯ রান।


More News Of This Category
এক ক্লিকে বিভাগের খবর
error:
error: