মঙ্গলবার, ০৪ অক্টোবর ২০২২, ১০:৩৩ পূর্বাহ্ন

নাসিরকে ভুলে নতুন প্রেমে গভীর ভাবে মজেছেন সুবাহ

প্রকাশিতঃ শুক্রবার, ১২ নভেম্বর, ২০২১, ১২:৪৮ অপরাহ্ন

গত ২০১৮ সালে মডেল ও অ’ভিনেত্রী সুবাহ শাহ হু’মায়রার একটি ভিডিও তুমুল আলোচনার জন্ম দিয়েছিল। যে ভিডিওতে তিনি জাতীয় দলের এক সময়কার নিয়মিত ক্রিকেটার নাসির হোসেনের সঙ্গে নিজের স’ম্পর্কের ব্যাপারটি ফাঁ’স করেছিলেন। তাদের সেই আ’লোচিত প্রে’মের ইতি ঘটেছে আগেই। সুবাহ’র প্রে’মকে পায়ে ঠেলে চলতি বছরের বিশ্ব ভালোবাসা দিবসে (১৪ ফেব্রুয়ারি) তামিমা তাম্মিকে বিয়ে করেছেন নাসির। এবার এই ক্রিকেটারের স্মৃ’তি ভুলে নতুন প্রে’মে মজেছেন সুবাহ।

 

আজ শুক্রবার (১২ নভেম্বর) বিকেলে ফেসবুকে দেয়া এক স্ট্যাটাসে নতুন প্রে’মের খবর জানিয়েছেন সুবাহ। তিনি লিখেছেন, ‘হ্যাঁ, আমি প্রে’মে পড়েছি। নতুন এবং গভীরভাবে। খুব শীঘ্রই আমি তাকে আপনাদের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিবো। ইনশাআল্লাহ।’ এর আগে গতকাল (১১ নভেম্বর) সোশ্যাল মিডিয়ায় তিনি লিখেছেন, ‘একজন সুদর্শন পুরুষের চেয়ে একজন যত্নশীল পুরুষ উত্তম!’

 

এর আগের পোস্টে (১০ নভেম্বর) সুবাহ লিখেছেন, ”কামড়াকামড়ি করে একটা স’ম্পর্ক টিকায়ে রাখার চেয়ে বিচ্ছেদ শ্রেয়। স’ম্পর্কের শ্রদ্ধা-বিশ্বা’স-অস্তিত্বের জায়গা নষ্ট হয়ে যাওয়ার পরও যারা সেটা মানতে পারে না, তাদের চেয়ে হিপোক্রেট আর কোনো মানুষ নাই। আর যারা বিচ্ছেদের পর ‘সে আমাকে ভালোবাসল না কেনো’ এবং ‘সে ছে’লে/মে’য়ে প্রতারক ছিল, সে ভালো ছিল না’ এই দুই নৌকাতেই পা দিয়ে চলে তারা হলো সবচেয়ে বড় সুবিধাবাদী।’

 

তিনি আরও লেখেন, ”যে কোনো একটা সিদ্ধান্ত নিন, ভালোবাসবেন/বাসতেন/বাসেন। নাকি গালাগাল করতেন/করেন/করবেন? আপনি একদিকে ‘তাকে এখনো ভালোবাসেন’ টাইপ কথা বলে সিমপ্যাথি (সহানুভূতি) নিবেন আবার আরেকদিকে শখের বশে নিচের শ্রেণীতে নেমে দুনিয়া জুড়ে প্রাক্তনকে গালাগালি দিয়ে বেড়াবেন তা তো হয় না, তাইনা? যে কোনো একটা করেন! হয় নিজের সম্মান রাখেন, না হয় নিজের অ্যাটিটিউড! দুইটার যাঁতাকলে পড়ে ব্যক্তিমানুষ হিসেবে লেইম হয়ে যাবেন না।’

 

এই অ’ভিনেত্রীর ভাষ্য, ‘কোনো কারণে স’ম্পর্ক শেষ হয়ে গেলে, প্রাক্তনের বন্ধুবান্ধবকে গালাগালি করার দুঃসাহসটাও বা আপনারা পান কোথায়? যেখানে আপনি আপনার সেই ভালোবাসার মানুষ অর্থাৎ প্রাক্তনকেই বোঝেন নাই, সেখানে তার বর্তমান বন্ধু-বান্ধবকে আপনি কট্টুক (কতটুকু) চেনেন বা জানেন!’

 

এদিকে সর্বশেষ সুবাহ লেখেন, ‘ঝামেলা হলো উপরের সব গুলা প্যারায় বর্ণিত ঘটনা গুলাকে আপনারা কালচার বানাচ্ছেন। কালচার আর বদ অভ্যাসের পার্থক্য নির্ণয় করতে শিখু’ন। নিজেদের যোগ্যতা এবং অযোগ্যতা বুঝতে শিখু’ন। প্রে’ম-বিচ্ছেদ সংক্রান্ত ফ্রাস্ট্রেশন আপনাদের এমনিই কমে যাবে! সুখী হোন, অন্যকে হতে দিন!’


More News Of This Category
এক ক্লিকে বিভাগের খবর
error:
error: