বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০২:২৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
শিরোনামঃ
দুবাই বিমানবন্দরে কী ঘটে তা জানার অপেক্ষায় ঢাকা আচার বলে বিমানবন্দরে ব্যাগে ঢুকিয়ে দিলো প্যাকেট, সৌদি গিয়ে জেলে প্রবাসী প্রেম নিয়ে গুঞ্জন, নায়িকা বললেন ‘সৃজিত আমার বাবার মতো’ রাস্তায় ঘুরে চুড়ি-ফিতা বিক্রি করছেন নায়িকা মৌসুমী হাতিরঝিলে নতুন সংসার শুরু করলেন অপু বিশ্বাস, চাইলেন দোয়া মালয়েশিয়া প্রবাসীদের পোস্ট অফিস থেকে যেভাবে পাসপোর্ট নিতে হবে মালয়েশিয়ায় রিক্যালিব্রেশনে আবেদনকারীরা কোম্পানির অফিসেই করতে পারবে ফিঙ্গারপ্রিন্ট মায়ের সামনে আগুনে পুড়ে মরলো শেকলবন্দি কলেজছাত্র! বিমানবন্দরে ১ সপ্তাহের মাঝে নমুনা পরীক্ষা শুরু, মূল্যও কমবে কুয়েত মোবারক আল-কাবির থেকে ৮০ জন গ্রেফতার!

বর-কনের বয়সের ব্যবধান ২৬, তিন বার বিয়ে ও বার্ষিকী

প্রকাশিতঃ মঙ্গলবার, ১৩ জুলাই, ২০২১, ৬:৫১ অপরাহ্ন

সুপারমডেল মিলিন্দ সোমান ও তাঁর স্ত্রী’ অঙ্কিতা কোনোয়ারের কথা। রীতিবিরুদ্ধ সুখী দম্পতি তাঁরা। বয়সের ব্যবধানকে থোড়াই কেয়ার করেছেন। এর জন্য কম কটাক্ষ শুনতে হয়নি। দেখতে দেখতে তিন বছর সংসারযাপন হলো তাঁদের। ভা’রতের বিনোদনভিত্তিক সংবাদমাধ্যম বলিউড বাবলের প্রতিবেদন, এ যুগল তিন স্থানে তিন বার বিয়ে করেছেন। প্রথম বার মুম্বাইয়ের আলিবাগে, পরের বার স্পেনের এক জলপ্রপাতে স্বপ্নীল আয়োজনে আর তৃতীয় বার বিয়ে করেছিলেন ‘পৃথিবীর শেষ প্রান্তে’, সঙ্গে ছিল ঘনিষ্ঠ বন্ধুবান্ধব ও পরিবারের লোকজন। গতকাল সোমবার (১২ জুলাই) এ দম্পতি তৃতীয় বিবাহবার্ষিকী’ উদযাপন করেন।

 

যদিও সংবাদমাধ্যম টাইমস নাউ-এর সঙ্গে আলাপচারিতায় সুপারমডেল মিলিন্দ সোমান বলেছেন, দুজনই বিবাহপ্রথায় তেমন আগ্রহী নন, তবু তাঁদের বিবাহিত জীবন দারুণ কাটছে। বিয়ে করে সুখেই আছেন। শেষতক মিলিন্দ সোমান বলেছেন, ‘আমি চাইনি। সাত বছর আগে আমাদের প্রথম দেখা হয়েছিল। প্রথম দেখার দিনেই আম’রা অবশ্য বিয়ে নিয়ে কথা বলেছিলাম। আম’রা বিয়ে করতে চাইনি। চার বছর ডেটিংয়ের পর আম’রা উপলব্ধি করলাম, এটা ভালো আইডিয়া, যেহেতু আম’রা একসঙ্গে থাকতে চাই। ওর মা-বাবা পরের ধাপে এগোনোর জন্য মুখিয়ে ছিলেন। এ সিদ্ধান্ত নিতে পেরে আমি খুশি।’

 

গতকাল সামাজিক মাধ্যমে দুজনই অন্তরঙ্গ ছবি পোস্ট করে একে অ’পরের প্রতি ভালোবাসা প্রকাশ করেছেন। আর অঙ্কিতা তো ইনস্টাগ্রামে স্বামীর উদ্দেশে বলেছেনই, ‘প্রতিটি দিনই রোমাঞ্চকর, কিছু একটার নতুন বার্ষিকী’ এবং আরেকটি ভালোবাসা দিবস তোমা’র সঙ্গে। সেখানেই থামেননি অঙ্কিতা। বলেছেন, তিন বছর আগের জাদুকরি বিয়ের অনুষ্ঠানের কথা। স্পেনের জলপ্রপাতের সেই স্মৃ’তিও রোমন্থন করেছেন। মিলিন্দ সোমানকে তাঁর আবেগভরা উক্তি, ‘আমা’র পৃথিবীর জল তুমি। জল ছাড়া কি পৃথিবী টেকে?’ মিলিন্দ সোমান ছাড়াও অঙ্কিতা নয়!

 

প্রকাশ্যে অঙ্কিতাকে তৃতীয় বিবাহবার্ষিকী’র শুভেচ্ছা জানাতে ভোলেননি মিলিন্দ সোমান। ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেলে তিনি স্ত্রী’র উদ্দেশে লিখেছেন—প্রতিটি মুহূর্ত, অঙ্কিতার প্রতি মুহূর্তের পাগলামি তিনি মিস করেন। মিলিন্দ সোমানের ফিটনেস স’ম্পর্কে অবগত ভা’রতের বিনোদন ও ক্রীড়া অঙ্গন। ভ্রমণপিপাসু তিনি। ঘুরে বেড়ান পৃথিবীর এ প্রান্ত থেকে ও প্রান্ত। আর মাঝেমধ্যে সামাজিক পাতায় সেই ভ্রমণের সঙ্গী অঙ্কিতাকেও দেখেন অন্তর্জালবাসী। আর তাই তো শুভ তৃতীয় বিবাহবার্ষিকী’র দিনে ইতিবাচক মন্তব্যে ভরিয়েছেন যুগলের হৃদয়কে। এনটিভি।


More News Of This Category
এক ক্লিকে বিভাগের খবর
error:
error: